‘সানি লিওনি’ সম্পর্কে অজানা ১২টি তথ্য

বিনোদন ডেস্ক: আমরা সানি লিওনকে সবাই পর্নস্টার বলেই চিনি, কিন্তু এর আগে তিনি কী ছিলেন বা তার ব্যক্তিগত জীবন কেমন ছিলো সে সম্পর্কে আপনার স্পষ্ট ধারনা আছে কি? দেখে নিন সানি লিওনের ব্যক্তিগত জীবনের অজানা ১৪ টি তথ্য।

১. ২০১০ সালে ‘‘ম্যাক্সিম’’-এর বিচারে ১২ শীর্ষ পর্নস্টারের একজন নির্বাচিত হন সানি।

২. কটি জার্মান বেকারিতে প্রথম চাকরি নেন সানি। তখন তাঁর বয়স ছিল ১৫।

৩. তাঁকে ছোটবেলায় ক্যাথলিক স্কুলে ভর্তি করা হয়। পরিবার মনে করেছিল, শিখ হওয়ায় পাবলিক স্কুলে তাঁর সমস্যা হবে।

৪. আমেরিকায় বুশ-বিরোধী আন্দোলনে সামিল হয়েছিলেন। সঙ্গী ছিলেন দুনিয়া-কাঁপানো পর্নস্টারেরা।

৫. ২০০৪ সালে ‘‘দ্য গার্ল নেক্সট ডোর’’-এ একটি ছোট্ট ভূমিকায় তাঁকে দেখা গিয়েছিল।

৬. তার পরেই তাঁর সঙ্গে পরিচয় হয় ‘‘পেন্টহাউস’’-এর ফোটোগ্রাফার জে অ্যালানের। সেটাই তাঁর জীবনের মোড় ঘুরিয়ে দেয়।

৭. সানি লিওন পর্ন-দুনিয়ায় পা রাখার আগে কী করতেন জানেন? শিশুরোগ সংক্রান্ত নার্সিং-এর ট্রেনিং নিতেন সানি।

৯. সানি যখন প্রথম পর্নোগ্রাফি করতে রাজি হন, তখন তাঁর শর্ত ছিল একটাই। শুধুমাত্র লেসবিয়ান পর্ন-ই করবেন তিনি।

১০. ২০০৫ সালে প্রথম পর্ন-দুনিয়া ছেড়ে মেইনস্ট্রিমে আগমন। এম টিভি-র একটি অনুষ্ঠানের কার্পেট রিপোর্টার হিসেবে।

১১. দ্বিতীয় পর্ন ছবি ‘‘ভার্চুয়াল ভিভিড গার্ল সানি লিওন’’-এই পেয়েছিলেন ‘‘এভিএন অ্যাওয়ার্ড’’। এটিই পর্ন-দুনিয়ার অস্কারের সমতুল্য।

১২. সানি লিওন একজন পশুপ্রেমী। পশুদের জন্য তিনি একাধিক উদ্যোগ নিয়ে থাকেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *